শিরোনাম: যশোরে আক্রান্ত হাজার ছাড়াল       মণিরামপুরে কালোবাজারে চাল বিক্রির মামলায় আটক কুদ্দুসের আদালতে স্বীকারোক্তি       পাওনা টাকা চাওয়ায় হত্যার হুমকি নিরাপত্তাহীনতায় জুয়েলের পরিবার       ঈদের ছুটি ৩ দিন, কর্মস্থল ত্যাগ করা যাবে না       ৭ মার্চ ‘জাতীয় ঐতিহাসিক দিবস’       বাড়ি বসে পাবে ৪০ প্যাকেট করে বিস্কুট       সাতক্ষীরার এমপি মোস্তাক আহমেদ করোনায় আক্রান্ত        ভাই-ভাইপোদের ভয়ে বাড়িতে পাহারাদার নিয়োগ!       বেনাপোল কাস্টম হাউজের তিন কর্মকর্তা বরখাস্ত       ঝিনাইদহে ১০ লাখ টাকার ভেজাল কসমেটিকস উদ্ধার, দু’জনের জেল       
চাল ছাড়া প্রায় সব পণ্যের দাম কমছে
কাগজ সংবাদ
Published : Saturday, 30 May, 2020 at 10:19 PM
চাল ছাড়া প্রায় সব পণ্যের দাম কমছে রমজান মাস ও ঈদ শেষে যশোরের বাজারে কমতে শুরু করেছে সব ধরনের নিত্য পণ্যর দাম। সপ্তার ব্যবধানে কমেছে আদা, রসুন, পেঁয়াজ, সয়াবিন, ডাল, চিনি ও সবজির দাম। তবে চালের দাম কিছুটা বেড়েছে। এছাড়া অন্যান্য নিত্য পণ্যর দাম স্থিতিশীল রয়েছে।
শনিবার সপ্তাহের প্রথম দিনে যশোরের বড় বাজারসহ বিভিন্ন বাজারে প্রতি কেজি আদা বিক্রি হয়েছে দু’শ’ ৮০ টাকায়। যা গত সপ্তায়ও তিনশ’ টাকা থেকে তিনশ’ ২০ টাকা কেজিতে বিক্রি হয়। করোনার প্রভাবে হঠাৎ আদার চাহিদা বৃদ্ধি পেলে সারাদেশের মতো যশোরের বাজারেও প্রয়োজনীয় এ নিত্য পণ্যর দাম বেড়ে যায়। তবে এক সপ্তার মধ্যেই আদার দাম কমতে শুরু করেছে। কমেছে পেঁয়াজ ও রসুনের দামও। মানভেদে প্রতি কেজি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৪০ টাকা থেকে ৪৫ টাকায়। রসুন একশ’ ১০ টাকা কেজি।
কিছুটা কমেছে সয়াবিনের দাম। প্রতি দু’লিটার রূপচাঁদা সয়াবিন তেল বিক্রি হচ্ছে দু’শ’ ১৫ টাকায়। যা গত সপ্তায় দু’শ’ ২০ টাকায় বিক্রি হয়। পাঁচ লিটার রূপচাঁদা পাঁচশ’ ২০ টাকা। ফ্রেশ, তীর, পুষ্টিসহ অন্যান্য ব্র্যান্ডের সয়াবিন পাঁচ টাকা থেকে দশ টাকা কমে বিক্রি হচ্ছে। আটা ৩২ টাকা কেজি। গত সপ্তা ৬৫ টাকায় বিক্রি হলেও এ সপ্তায় চিনি ৬০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। লবণ বিক্রি হয়েছে ৩০ টাকা কেজিতে।
কমেছে সব ধরণের ডালের দাম। মসুর ডাল বিক্রি হচ্ছে একশ’ ২০ টাকা কেজিতে। যা গত সপ্তায় মানভেদে একশ’ ৬০ টাকা একশ’ ৮০ টাকায় বিক্রি হয়। মুগ ডাল একশ’ ২০ টাকা। ছোলার ডাল একশ’ টাকার পরিবর্তে এ সপ্তায় বিক্রি হচ্ছে ৮০ টাকা থেকে ৯০ টাকায়। বুটের ডাল ৪৮ টাকার পরিবর্তে বর্তমানে বিক্রি হচ্ছে ৪৫ টাকায়।
সেসাথে সবজির দাম এ সপ্তা নি¤œমুখি। প্রতি কেজি উচ্চে, পটল, কাঁচকলা ও বরবটি ৩০ টাকা। কমেছে বেগুনের দামও। প্রতিকেজি বেগুন বিক্রি হচ্ছে ৪০ টাকায়। যা গত সপ্তায় ছিল ৬০ টাকা। ঢেড়স ২০ টাকা, মিষ্টি কুমড়া ২০ টাকা, চিচিঙ্গা ৪০ টাকা, লাউ প্রতি পিস ২৫ টাকা থেকে ৪০ টাকা, লেবু মানভেদে ১০ টাকা থেকে ৩০ টাকা হালি, প্রতি কেজি আলু ২৪ টাকা এবং কাঁচামরিচ ৪০ টাকা কেজিতে বিক্রি হয়েছে।
অন্যদিকে সপ্তাহের শুরুতেই বেড়েছে চালের দাম। চাল বাজারে প্রতি কেজি স্বর্ণা ও রতœা বিক্রি হচ্ছে ৪০ টাকায়। গত সপ্তায় কাজললতা ও আঠাশ ৪৫ টাকায় বিক্রি হলেও এ সপ্তায় বিক্রি হচ্ছে ৪৮ টাকা কেজিতে। মিনিকেট ৫৪ টাকা কেজি। যা গত সপ্তায়ও ৫০ টাকা থেকে ৫২ টাকায় বিক্রি হয়। বাংলামতির কেজি ৫৮ টাকা। নাজিরশাইল ৬৮ টাকা। এ সপ্তায় প্রতি কেজি সোনালী মুরগী বিক্রি হচ্ছে দু’শ’ ২০ টাকা কেজিতে। ব্রয়লার একশ’ ৭০ টাকা। গরুর মাংস পাঁচশ’ ৫০ টাকা। খাসির মাংস সাতশ’ ৫০ টাকা। প্রতি কেজি ছোট ইলিশ বিক্রি হচ্ছে তিনশ’ ৫০ টাকা কেজিতে। মাঝারি ইলিশ সাতশ’ ৫০ টাকা থেকে আটশ’ টাকা। বড় ইলিশ এক হাজার টাকা থেকে এক হাজার দু’শ’ টাকা কেজি।     





« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft