আজ সোমবার, ৩ মাঘ ১৪২৩ বঙ্গাব্দ, ১৬ জানুয়ারী ২০১৭ খ্রিস্টাব্দ
দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল
শিরোনাম: বঙ্গবন্ধুর খুনিদের পুরস্কার প্রদানকারীদের সাথে সংলাপ হতে পারে না : হানিফ       দেশের উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে আওয়ামী লীগ : কৃষিমন্ত্রী       শৈত্যপ্রবাহ অব্যাহত থাকতে পারে       এমন ম্যাচেও হারলো বাংলাদেশ!       ‘বেসরকারি কলেজ শিক্ষকদের ক্যাডারভুক্ত নয়’       সংবিধান অনুযায়ী সব সমস্যার সমাধান হবে : ওবায়দুল কাদের       নতুন ৪ জিএম কৃষি ব্যাংকে        এবার হলিউডে যাচ্ছেন সোনম       কিরগিজস্তানে তুরস্কের কার্গো বিমান বিধ্বস্তে নিহত ৩৭       আমাজনের চপ্পলের বিজ্ঞাপনে গান্ধী, ভারতে ক্ষোভ       
আরো সহজ হলো ভারতীয় ভিসা আবেদন প্রক্রিয়া
ই-টোকেন ছাড়াই আবেদন জমা দেয়া যাবে যশোর সেন্টারে
ফয়সল ইসলাম :
Published : Friday, 30 December, 2016 at 12:58 AM
ই-টোকেন ছাড়াই আবেদন জমা দেয়া যাবে যশোর সেন্টারে ভারতীয় ভিসা আবেদন প্রক্রিয়া আরো সহজ করেছে ঢাকাস্থ ভারতীয় হাইকমিশন। ই-টোকেন ব্যবস্থা শিথিল করে বাস, ট্রেন ও বিমানের নিশ্চিত ভ্রমণ টিকিট সংগ্রহকারীরা সরাসরি টুরিস্ট ভিসার আবেদন জমা দিতে পারবেন আসছে পহেলা জানুয়ারি থেকে। এ ঘোষণাটি দেয়া হয়েছে ২৮ ডিসেম্বর। একদিন পরেই নতুন চমক দিলো ভারতীয় হাইকমিশন। গতকাল ঘোষণা দেয়া হয়েছে শিশুদের টুরিস্ট ভিসার আবেদনের ক্ষেত্রে ই-টোকেন লাগবে না। এ আবেদন যশোর সেন্টারেও জমা দেয়া যাবে। একই সাথে কুটনৈতিক ও সরকারি পাসপোর্টধারীদের পরিবারের সদস্যরা ই-টোকেন ছাড়াই টুরিস্ট ভিসার আবেদন জমা দিতে পারবেন। তবে তা শুধু মাত্র ঢাকার উত্তরা আইভিএসিতে।
হাইকমিশন সূত্র জানিয়েছে,  আসছে পহেলা জানুয়ারি থেকে ভারত ভ্রমণেচ্ছু পিতা-মাতার সঙ্গে ১৮ বছরের নীচের অপ্রাপ্ত বয়স্ক শিশুদের টুরিস্ট ভিসার জন্য কোন আলাদা অ্যাপয়েন্টমেন্ট ডেট বা ই-টোকেন প্রয়োজন হবে না। মিরপুর আইভিএসি ব্যতিত যশোর, খুলনাসহ গুলশান, উত্তরা, মতিঝিল, ময়মনসিংহ, বরিশাল, রংপুর, রাজশাহী, চট্টগ্রাম ও সিলেটের ভারতীয় ভিসা আবেদন কেন্দ্রে বাবা-মায়েরা তাদের টুরিস্ট ভিসা আবেদন পত্রের সঙ্গে শিশুদের আবেদনসমূহ জমা দিতে পারবেন। এমনকি ভারতীয় ভিসা আছে এমন বাবা-মায়েদের যে কোন একজন তাদের শিশু সন্তানদের পক্ষে আবেদনপত্র জমা দিতে পারবেন। সেক্ষেত্রে তাদের প্রাপ্ত ভিসার ফটোকপি আবেদন পত্রের সঙ্গে সংযুক্ত করতে হবে। পূর্বে বাবা-মায়ের পাশাপাশি শিশু সন্তানদের টুরিস্ট ভিসা আবেদনের ক্ষেত্রে ই-টোকেন বাধ্যতামূলক ছিলো। বাবা-মায়ের যে কোন একজনের ই-টোকেন আগে করার পর শিশু সন্তানদের ই-টোকেন করতে হতো। ই-টোকেন ব্যতিত কোন ভাবেই ভিসা আবেদন জমা নেয়া হতো না।  
কর্তৃপক্ষ আরো ঘোষণা দিয়েছেন, বাংলাদেশ থেকে কূটনৈতিক ও সরকারি পাসপোর্টধারীদের পরিবারের নিকটতম সদস্যরা তাদের টুরিস্ট ভিসা আবেদনপত্র একমাত্র উত্তরা আইভিএসিতে প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১২টার মধ্যে কোন অ্যাপয়েন্টমেন্ট ডেট বা ই-টোকেন ছাড়াই জমা দিতে পারবেন। আবেদনপত্র জমা দেয়ার সময় মূল কূটনৈতিক/সরকারি পাসপোর্ট দেখাতে হবে এবং আবেদপত্রের সঙ্গে পাসপোর্টের ফটোকপি সংযুক্ত করতে হবে। পূর্বের নিয়মে কূটনৈতিক পাসপোর্টধারীদের (লাল পাসপোর্ট) ভারত ভ্রমণের ক্ষেত্রে কোন ভিসার প্রয়োজন হয় না। ভারতে যাওয়ার ক্ষেত্রে ইমিগ্রেশন থেকে তাদের পাসপোর্ট যাচাই করেই তাদের ভ্রমণের অনুমতি দেয়া হয়। একই সাথে সরকারি পাসপোর্টধারীরা (নীল পাসপোর্ট) সংশ্লিষ্ট কর্মস্থল থেকে ভ্রমণের লিখিত অনুমতিপত্র দেখালে যেকোন বন্দর দিয়ে তারা ভারতে ঢুকতে পারেন। কিন্তু  কূটনৈতিক ও সরকারি পাসপোর্টধারীদের পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের টুরিস্ট ভিসা আবেদনের ক্ষেত্রে ই-টোকেন বাধ্যতামূলক ছিলো।
উল্লেখিত দু’টি ঘোষণার বিষয়ে ভারতীয় হাইকমিশন কর্তৃপক্ষ বলেছেন, ভারতে শিশুদের তাদের পরিবারের সঙ্গে ভ্রমণের উপকারে ই-টোকেন প্রথা বাতিল করে শুভেচ্ছা প্রদর্শন করা হচ্ছে। এ সুবিধা কূটনৈতিক ও সরকারি পাসপোর্টধারী পরিবারবর্গ ভোগ করবেন। এতে ভারতীয় ভিসা প্রাপ্তি সহজ করা এবং দুই দেশের মধ্যে মানুষে-মানুষে যোগাযোগ ও সম্পর্ক আরো বৃদ্ধি পাবে বলে আশা করা যায়।




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : gramerka@gmail.com, editor@gramerkagoj.com
Design and Developed by i2soft