শিরোনাম: সব ধরনের কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশ       বাংলাদেশের ইতিহাসে সর্বোচ্চ রেমিট্যান্স এল জুলাইয়ে       ইতালিতে প্রবেশের অপেক্ষায় হাজারও বাংলাদেশি       স্বামীর বাড়ি গিয়ে নববধূ জানলেন তার করোনা       যশোরের আসলাম ঢাকার মানবিক যুবলীগ নেতা        রাত ১০টার পর বাইরে বের হওয়া নিষিদ্ধ       মানুষের মন জয় করে বিদায় নিচ্ছেন রামগড়ের ইউএনও বদরুদ্দোজা       কেশবপুরে দুই দল মাদক বিক্রেতার মধ্যে গুলি বিনিময়, নিহত ১       বাগেরহাটে করোনায় আক্রান্ত আরও ২৬ জন        জয়পুরহাটে ফেন্সিডিলসহ ২ মাদক কারবারি আটক      
ক্ষুধায় প্রতিদিন ১২ হাজার মানুষের মৃত্যুর আশঙ্কা
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
Published : Friday, 10 July, 2020 at 11:03 AM
ক্ষুধায় প্রতিদিন ১২ হাজার মানুষের মৃত্যুর আশঙ্কাকরোনাভাইরাসের চেয়ে ক্ষুধায় দশটি দেশের অনেক মানুষ মারা যেতে পারে বলে জানিয়েছে অক্সফ্যাম।
অক্সফ্যাম ইন্টারন্যাশনাল এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, কোভিড-১৯ এর কারণে খাবার না পেয়ে বছরের শেষদিকে বিশ্বে প্রতিদিন ১২ হাজার মানুষ মারা যেতে পারে। যা করোনাভাইরাসের চেয়ে বেশি মৃত্যু বয়ে আনবে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করছে অক্সফ্যাম।
অক্সফ্যামের ব্রিফিংয়ে বিশ্বের দশটি ক্ষুধার হটস্পট দেশগুলো প্রকাশ করেছে তারা। এতে দেখা গেছে, ভেনেজুয়েলা এবং দক্ষিণ সুদানের মতো দেশগুলোতে যেখানে খাদ্য সমস্যা সবচেয়ে মারাত্মক এবং মহামারির ফলে আরো খারাপ হচ্ছে। এটি ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকা এবং ব্রাজিলের মতো মধ্য আয়ের দেশগুলোর ক্ষুধার উদীয়মান উপকেন্দ্রকেও নির্দেশ করে।
বিবিসি’র এক প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, খাবার না পেয়ে মারা যেতে পারে মানুষ এমন দশটি দেশের মধ্যে রয়েছে, ইয়েমেন, কঙ্গো, আফগানিস্তান, ভেনেজুয়েলা, পশ্চিম আফ্রিকান সাহেল, ইথিওপিয়া, দক্ষিণ সুদান, সিরিয়া, সুদান এবং হাইতি।
আর এর কারণ হিসেবে এই দাতব্য সংস্থাটি জানিয়েছে, চাকরি হারানো, খাবার উৎপাদন কমে যাওয়া এবং পরিবহনে বাধা এই সমস্যাটিতে নেতিবাচক ভূমিকা নিয়ে আসবে।




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft