শিরোনাম: মাদক কারবারিরা দাপিয়ে বেড়াচ্ছে        আদালতে ভার্চ্যুয়াল প্রদ্ধতির অবসান হচ্ছে আজ        সদরে ৭২ জনসহ নতুন ১৩৮ জন শনাক্ত       কুরবানি চইলে গেচে শিক্কেডা যেন থাইকে যায়       যশোরের একমাত্র নারী ক্রিকেট কোচ তিন্নির মৃত্যু        যশোর পৌরসভায় যুক্ত হচ্ছে ৭ বর্গ কি.মি.       সর্বকালের সর্বনিম্ন দরে লেনদেন       ‘জাতীয় পার্টি গণমানুষের আস্থার রাজনৈতিক শক্তি’       চট্টগ্রাম সিটির প্রশাসক হলেন আ.লীগ নেতা সুজন       প্রথমবারের মতো সরকারিভাবে পালিত হবে শেখ কামালের জন্মদিন       
মেদ ঝরাবে যেসব ফল
কাগজ ডেস্ক
Published : Wednesday, 1 July, 2020 at 11:19 PM
মেদ ঝরাবে যেসব ফলপুষ্টিকর ফল নিয়মিত খেলে সুস্থ থাকার পাশাপাশি ঝরবে বাড়তি মেদ। ফ্যাট বার্ন করে এমন কিছু ফলের ব্যাপারে জেনে নিন।
ডায়াটারি ফাইবার ও ভিটামিন সি সমৃদ্ধ পেয়ারা খেতে পারেন নিয়মিত। এটি রক্তে চিনির পরিমাণ নিয়ন্ত্রণে রাখে ও বাড়তি মেদ জমতে দেয় না শরীরে। এটি খেলে বাড়ে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও।   
নারকেলে মিডিয়াম চেন ট্রাইগ্লিসারাইড থাকে, যা লিভারের মেটাবলিক রেট বাড়াতে সাহায্য করে। নারকেল দুধ, নারকেল তেল বা ডাবের পানি খাওয়াও উপকারী।      
মেদ ঝরাতে চাইলে স্ট্রবেরি খেতে পারেন। ১০০ গ্রাম স্ট্রবেরিতে মাত্র ৩৩ ক্যালোরি থাকে। ফলে এটি জমে না বাড়তি মেদ হয়ে।
ওজন কমাতে আপেলের জুড়ি নেই। ফাইবার কনটেন্ট বেশি এবং ক্যালোরি কম থাকায় আপেল ফ্যাট-বার্নিং ফলের তালিকায় রয়েছে উপরের দিকে। এ ফল থেকে ভিটামিন বি, সি খনিজ পদার্থ এবং অ্যান্টিঅক্সিড্যান্টও পাওয়া যায় প্রচুর পরিমাণে। আপেল খেলে পেট অনেকক্ষণ ভরে থাকে, ফলে বাড়তি খাবার খাওয়ার ইচ্ছে কমে।
কলায় ক্যালোরি একটু বেশি থাকলেও প্রচুর পরিমাণে থাকে ফাইবারও। ফলে কলা খেলে পেট ভরা থাকে অনেকক্ষণ। এই ফাইবার শরীরকে কার্বোহাইড্রেট শুষে নেওয়া থেকে আটকায়। ফলে কার্বোহাইড্রেটের বদলে ফ্যাটটাকেই এনার্জি হিসেবে পোড়ায় শরীর।
লিভার ডিটক্সিফাই করে লেবু। ফলে লিভারের পাচনক্ষমতা এবং ক্যালোরি পোড়ানোর ক্ষমতা, দুই-ই বজায় থাকে। শরীরে ফ্যাট জমতে দেয় না লেবু। সকালে একগ্লাস কুসুম গরম পানিতে লেবু চিপে খেলে পেটে জমে না মেদ।
তরমুজের প্রায় পুরোটাই পানি। ফলে গ্রীষ্মকালে প্রতিদিন খাবার তালিকায় তরমুজ রাখুন। বাড়তি মেদ ভিড়বে না কাছে।
কম ক্যালোরি কিন্তু বেশি ফাইবার ও ভিটামিন সমৃদ্ধ আরেক ফল হচ্ছে কমলা। কমলা খান সরাসরি। জুস বানিয়ে বাড়তি চিনি মিশিয়ে খাবেন না।
তথ্য: এনডিটিভি, হেলথ লাইন, সানন্দা





« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft