শিরোনাম: পুলিশে নতুন আক্রান্ত ১৫২, মোট সুস্থ ১১ শতাধিক       করোনার মাঝে কাশি হলে যা করবেন       বন্ধ হবে স্যাটেলাইট, মোবাইল!       একদিনেই মৃত্যু ২১, আক্রান্ত ১১৬৬ জন       যেসব উপসর্গে চিকিৎসকরাও অবাক       বিএনপির নেতারা পুরনো বৃত্তেই ঘুরপাক খাচ্ছেন : কাদের       দিনাজপুরে ঘরে ধান তুলতে ব্যস্ত কৃষক       নারায়ণগঞ্জে আরও ১৪৫ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত       ভারতে ছুটে আসছে পঙ্গপালের আরেকটি বাহিনী!       ভারতে ২৪ ঘণ্টায় সাড়ে ৬০০০সহ মোট আক্রান্ত প্রায় দেড় লাখ      
সৌদিতে করোনার কাছে হেরে গেলেন যশোরের ডাক্তার আফাক হোসেন
কাগজ সংবাদ
Published : Wednesday, 1 April, 2020 at 2:42 AM
সৌদিতে করোনার কাছে হেরে গেলেন যশোরের ডাক্তার আফাক হোসেনপ্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের কাছে হেরে গেলেন যশোরের কৃতি সন্তান ডাক্তার আফাক হোসেন মোল্লা । তিনি যশোরের বাঘারপাড়া উপজেলার পুকুরিয়া গ্রামের আমজাদ হোসেন মাস্টারের ছেলে ও যশোরের শার্শা উপজেলার বাগআঁচড়া এলাকার সাবেক চেয়ারম্যান আবু দাউদের বড় জামায়।  মঙ্গলবার সৌদি আরবের মদিনার একটি হাসপাতালে বাংলাদেশ সময় সকাল ৬ টায় তার মৃত্যু হয়।  এর আগে সৌদি আরবে  করোনা মোকাবেলায় তিনি রোগীদের নিয়মিত চিকিৎসা সেবা দিয়ে আসছিলেন। এরমধ্যে রোববার তিনি হঠাৎ শ্বাসকষ্ট অনুভব করে। পরে তাকে  করোনা স্পেশালিষ্ট হাসপাতালে ভর্তি করা হলে তার দেহে করোনা ভাইরাসের সংক্রামণ পাওয়া যায়। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, দুই মেয়ে, এক ছেলে সহ অসংখ্য গুনাগ্রহী রেখে গেছেন। বর্তমানে তার স্ত্রী জেসমিন জাহান শিরিনকে সৌদি আরবে বিশেষ নজরদারিতে রাখা হয়েছে। ডাক্তার  আফাক হোসেন ঝিনাইদহ ক্যাডেট কলেজের গর্বিত ছাত্র ছিলেন। এরপর স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজের পঞ্চম ব্যাচের শিক্ষার্থী হয়ে এমবিবিএস পাস করেন তিনি। পরে চিকিৎসা সেবাই অর্থপেডিক্স বিভাগে বিশেষ প্রশিক্ষনে তিনি দির্ঘদিন ইরানে ডাক্তারি প্রাকটিস করেন। পরে যশোর এসে রেলরোডে বুশরা অর্থপেডিক্স ক্লিনিক নামের একটি প্রতিষ্ঠান তৈরী করেন। সর্বশেষ ২০০০ সালে তিনি স্বপরিবারে সৌদিতে পারি জমান। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত তিনি মদিনায় সাফা আল-মদিনা ক্লিনিকে অর্থপেডিক্স বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক হিসেবে কর্মরত ছিলেন। স্ত্রী আর তিনি মদিনার একটি ফ্লাটে বসবাস করতেন। তিনি অসংখ্য করোনা রোগীকে সেবা দিয়ে সুস্থ্য করে তুললে  সর্বশেষ তিনি নিজেই করোনার কাছে অসহায় আত্মসমর্পণ করেন। তার বড় মেয়ে বুশরা তাসনিম ঢাকায় স্বামীর সাথে থাকেন। ছোট মেয়ে আফরা নাওয়ার আমেরিকায় পড়াশোনা করেন । একমাত্র ছেলে সামিউল সোয়াদ কানাডার ব্রাম্পটন ফ্লাইট সেন্টারের কমার্শিয়াল পাইলট কোর্সের শিক্ষার্থী।  এছাড়া তিনি যখন তিনি বাংলাদেশে অবস্থান করতেন তখন তিনি বিনা পারিশ্রমিকে রয়্যাল মাল্টিস্পেশালিটি হাসপাতালে চিকিৎসাসেবা দিতেন। তার এ করুণ মৃতুত্যে গভীর শোক ও নিহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন মদিনার সাফা আল-মদিনা ক্লিনিক ও ঢাকার রয়্যাল মাল্টিস্পেশালিটি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। নিহত আফাক হোসেনের মেয়ে বুশরা তাসনিম জানান, বুধবার মরহুমের নামাজের জানাজা শেষে সৌদির ওহুদ পাহাড়ে তার দাফন সম্পন্য হবে। তিনি তার পিতার রুহের মাগফেরাত কামনায় সকলের কাছে দোয়া প্রার্থনা করেন।




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft