শুক্রবার, ২২ নভেম্বর, ২০১৯
দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল
রাজশাহীতে কিশোর গ্যাংয়ের তিন সদস্য আটক
রাজশাহী ব্যুরো :
Published : Sunday, 6 October, 2019 at 5:19 PM
রাজশাহীতে কিশোর গ্যাংয়ের তিন সদস্য আটকরাজশাহীতে এক যুবককে জিম্মি করে তার অশালীন ভিডিও ধারণ করা ও ভয়ভীতি দেখিয়ে ২০ হাজার টাকা চাঁদা দাবির অভিযোগে তিন কিশোরকে আটক করেছে পুলিশ।
রবিবার (৬ অক্টোবর) সকালে পুঠিয়া উপজেলায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।
জেলা পুলিশের এসপি বলছেন, আটককৃতরা কিশোর গ্যাং চক্রের সদস্য। বহুদিন থেকেই এই চক্রটি স্থানীয় স্কুল কলেজের শিক্ষার্থীদের উত্ত্যক্ত করার পাশাপাশি, ছিনতাই ও বিভিন্ন মানুষকে ব্ল্যাকমেইলের মাধ্যমে চাঁদা আদায় করে আসছিল।
আটককৃতরা হলেন- পুঠিয়া উপজেলার পালোপাড়া গ্রামের আইয়ুব আলীর ছেলে রকিবুল হাসান রকি (১৮), সরদারপাড়া গ্রামের সোহরাব হোসেনের ছেলে আমিনুল ইসলাম তন্ময় (১৮) ও একই গ্রামের সিরাজুল ইসলামের ছেলে হাসিবুল হাসান (১৮)।
এছাড়া এই কিশোর গ্যাং চক্রের আরও চার থকে পাঁচজন সদস্যকে খুঁজছে পুলিশ। পাশাপাশি এদের সহযোগী হিসেবে পেছনে অন্য কোনো চক্র কাজ করছে কি না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।
রবিবার দুপুরে রাজশাহী জেলার পুলিশ সুপার (এসপি) মো. শহিদুল্লাহ সংবাদ সম্মেলন করে এই তথ্য নিশ্চিত করেন। রাজশাহী জেলা পুলিশের সদর দপ্তরে এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।
সংবাদ সম্মেলনে এসপি ঘটনার বর্ণনা দিয়ে জানান, শনিবার (৫ অক্টোবর) সন্ধ্যা আনুমানিক ৭টার দিকে পুঠিয়া উপজেলার শামীর রেজা (১৯) নামে এক যুবক তার আত্মীয় বাবু মন্ডল (১৭) ও তার বন্ধু সুদীপ কুমারকে (২০) নিয়ে উপজেলার ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়কের পাশে বসে গল্প করছিল। এ সময় আটককৃত রকি, তন্ময় ও হাসান এই তিন কিশোর আরও চার থেকে পাঁচজনকে সঙ্গে নিয়ে এসে শামিমদের ওপর অতর্কিত আক্রমণ করে।
এরপর ভুক্তভোগী শামীমকে পাশের পরিত্যক্ত একটি বাড়িতে নিয়ে জোরপূর্বক একজন তরুণীর সঙ্গে অন্তরঙ্গ ভিডিও ধারণ করে। এ সময় সেই ভিডিওটি পরিবারের কাছে দেখানো ও পুলিশকে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে শামীমের কাছ থেকে ২০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করা হয়।
এক পর্যায়ে শামীম কৌশলে সেখান থেকে পালিয়ে যায় এবং বিষয়টি নিয়ে পুঠিয়া থানায় একটি অভিযোগ করে। এরপর রবিবার সকাল ৯টার দিকে পুঠিয়া থানা পুলিশ অভিযান চালিয়ে ওই তিন যুবককে আটক করেছে।
আটককৃত কিশোররা পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে প্রাথমিকভাবে জানিয়েছে, তারা দীর্ঘদিন থেকে এলাকায় এসব অপকর্ম করে আসছে। আটককৃতদের দেওয়া তথ্য মতে ওই চক্রের নারী সদস্যসহ অন্যান্য সদস্যদের আটকের উদ্দেশ্যে অভিযান অব্যাহত আছে।
এসপি আরও জানান, আটককৃতদের বিরুদ্ধে কিশোর আইনে মামলার প্রস্তুতি চলছে। পরে তিনি সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন। এছাড়া রাজশাহীর আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির উন্নয়নে জেলা পুলিশের ভূমিকা তুলে ধরেন।




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft