সোমবার, ১৮ নভেম্বর, ২০১৯
আক্কেল চাচার চিঠি (আঞ্চলিক ভাষায় লেখা)
এট্টার বেশী নয়, আদ্দেক হলি ভালো হয়
Published : Sunday, 6 October, 2019 at 6:12 AM
বাঙালী খাওয়া পাগল এ বইদরাম গুড়াগুড়ি। খাওয়ার দন্যি জীবন দিতি রাজি, তবু খাওয়া ছাড়ান দিতি রাজি না। কয়দিন ধইরে সারাদেশে পিয়েজ নিয়ে খুব হুটোপাটা। ভারত আর আমাগের পিয়েজ দেবে না এই কতা চাউর হওয়ার সাতে সাতে ভোজবাজির মতো বাজারের চিহারা পাল্টায় গ্যালো। গুডাউনে পইড়ে থাকা বাস্তা বাস্তা পিয়েজ চোকির পলকে সাইরে ফেলে নেই নেই শুরু হইলো। কুড়ি টাকার পিয়েজ চার ছয় মাইরে সেঞ্চুরী কইরে ফেইল্লো তাও থামার লক্ষণ নেই। ধান্দা কইরে অনেক জাগায় এক, কুড়ি পন্তিক উটোয় দিলো।
তলাশ কইরে জানতি পালাম, আমাগের দেশে বচরে পিরায় ১৭ লক্ক টোন পিয়েজ ফলানো হয়। এর বাইরি ৫-৬ লক্ক টোন পিয়েজ বিদেশতে কিনে আনতি হয়। পৃতিবীর মদ্দি বেশী পিয়েজ চাষ হয় চীন দেশে। কিন্তুক আমাগের দেশে পিয়েজের বড় চালান আসে ভারতেত্তে। তারা আর দেবে না জানতি পাইরে দাম চড়ায় দেচে ঝোপ বুইজে কোপ মারা ব্যবসায়ীরা। পিয়েজের দাম যে বাজারে বাইড়ে গেচে তা বাড়ির বউ ঝি রাও জাইনে গেচে। সেদিন পাশের বাড়ি শুনলাম এক ম্যা’ভাই বাজারেত্তে বাড়ি আইসে ভাবীর হাতে বাজারের খতে দেচে। ভাবী খতেত্তে বাজার সদায় লাবাতি যাইয়ে দেকে পিয়েজ নেই। গলা চড়ায় বররে কচ্চে, তুমার স্বভাব হচ্চে যা কবো তাতেত্তে এট্টা কইরে মাল জিনুস কম আনা। সব আনলে পিয়েজ কই? ম্যা’ভাই মুখ কাচুমাচু কইরে কচ্চে না মানে, পেত্তেক দিন দেকি পিয়েজ কুচোনোর সুমায় তুমার চোখ দিয়ে পানি গড়ায় পড়ে। তুমি কষ্ট পাবা, আর সেই কাজ আমি করবো ইরাম সীমার তো আমি হইনি। ভাবী গলা চড়ায় কচ্চে অত পিরিত কত্তি হবে না। তুমি যে কিরপিন, বাজারে দাম বাড়েচে সেই উসলোতে পিয়েজ না কিনে কষ্টোর দুহায় দিচ্চাও।
সাধারোন জনগণের কতায় ঘাস জল খায় না। কিন্তুুক স্বয়ং পোধানমুন্ত্রী যকন দিল্লী যাইয়ে কইয়েচেন, রান্দুনীরে কইয়ে দিচি রান্দায় পিয়েজ কম দিতি তকনতেই সব জাগায় চালু হইয়ে গেচে রান্দায় এট্টার বেশী নয়, আদ্দেক হলি ভালো হয়। আলাম কনে, মলাম যে !
ইতি-
অভাগা আক্কেল চাচা
০১৭২৮৮৭১০০৩




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft