শুক্রবার, ২২ নভেম্বর, ২০১৯
আন্তর্জাতিক সংবাদ
কাশ্মীর নিয়ে টুইট করে ভারতীয়দের তোপের মুখে মালালা
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
Published : Friday, 9 August, 2019 at 8:35 PM
কাশ্মীর নিয়ে টুইট করে ভারতীয়দের তোপের মুখে মালালাজম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিল করে রাজ্যটিকে খণ্ড বিখণ্ড করার ভারতীয় পদক্ষেপের সমালোচনা করেছেন পাকিস্তানের নোবেলবিজয়ী তরুণী মালালা ইউসুফজাই। তিনি সেখানকার শিশুদের ভবিষ্যৎ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে বুধবার একটি টুইট করেছেন। আর এতেই ক্ষেপে উঠেছে হিন্দুত্ববাদী ধ্যান ধারণায় বিশ্বাসী কিছু ভারতীয়। তারা মালালার বিরুদ্ধে নানা কটুক্তি করেছে যার অনেকগুলো ভাষায় প্রকাশ করার মত না। এমনকি মালালাকে কটাক্ষ করে পাল্টা টুইট করেছেন ভারতের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত দোভালের মত ব্যক্তিত্ব।
সোমবার জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ রাজ্যের মর্যাদা বাতিল করে দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে ভাগ করার ঘোষণা দেয় মোদি সরকার। এর প্রতিবাদে বুধবারই ভারতীয় রাষ্ট্রদূতকে বরখাস্ত করেছে ইসলামাবাদ। এরপরই কাশ্মীরের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে মালালা।
টুইটে তিনি লিখেছেন, ‘আমি যখন ছোট, তখন থেকে কাশ্মীর অশান্ত। আমার বাবা-মা যখন ছোট, আমার দাদা-দাদি যখন ছোট, তখন থেকে কাশ্মীর অশান্ত। সাত দশক ধরে কাশ্মীরের শিশুরা হিংসার মধ্যে বড় হচ্ছে।... কাশ্মীরের নারী ও শিশুদের কথা ভেবে আমি উদ্বিগ্ন। যে কোনও অশান্তি, হিংসায় তারাই সফট টার্গেট, তারাই সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত হন। সংঘাতের পরিবেশে সবচেয়ে বেশি যন্ত্রণা তাদেরই ভোগ করতে হয়। আমি আশা করব, দক্ষিণ এশিয়ার মানুষ, আন্তর্জাতিক মহল এবং সংশ্লিষ্ট সব পক্ষ তাদের কথা ভাববেন। যত মতভেদই থাকুক, আমরা যেন মানবাধিকারকে রক্ষা করি, নারী ও শিশুদের সুরক্ষাকে অগ্রাধিকার দিই এবং কাশ্মীর সমস্যার শান্তিপূর্ণ সমাধান খুঁজি।’
এই টুইট করার সঙ্গে সঙ্গে নোবেলজয়ীর মালালার বিরুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়ে ভারতের অসহিষ্ণু নেটিজনেরা। এটুকু বিবৃতিতেই সমালোচনার নানা বাক্যবাণে মালালাকে বিদ্ধ করতে থাকে ভারতীয়। তারা তাকে পাক চর, পাক পুতুল ইত্যাদি বলেও আখ্যায়িত করেন। কারো কারো বক্তব্য এতটাই উগ্র যেন হাতে পেলে মালালাকে তারা ছিড়ে খুঁড়ে ফেলবে। মালালা নোবেল পুরস্কার পাওয়ার যোগ্যই নন বলেও মন্তব্য করেন কেউ কেউ।
অথচ মালালা কিন্তু ভারতের বিরুদ্ধে নয়, তিনি শান্তির পক্ষেই কথা বলেছেন। তিনি বলেন, ‘আমি কাশ্মীর নিয়ে চিন্তিত, কারণ দক্ষিণ এশিয়াই আমার ঘর। ১৮০ কোটি মানুষের সঙ্গে সেই ঘরে আমার বাস, যার মধ্যে কাশ্মীরিরাও আছেন। আমি বিশ্বাস করি, সবাই মিলে শান্তিতে থাকা সম্ভব। পরস্পরকে আঘাত করে চলার কোনও প্রয়োজন তো নেই।’
এ নিয়ে মালালার সমালোচনা করেছেন খোদ ভারতের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত দোভালও। মালালার টুইটের জবাবে পালটা টুইট করে তিনি বলেন,‘সন্ত্রাসের শিকার হয়ে যাকে নিজের দেশ থেকেই পালিয়ে যেতে হয়, তাঁর মুখে কাশ্মীরিদের নিয়ে এত সতর্কতার কথা মানায় না।’
প্রসঙ্গত, কাশ্মীর জুড়ে বর্তমানে যে সঙ্কট চলছে তার পিছনে এই অজিত দোভালের ভূমিকাও কিন্তু কম নেই। কাশ্মীরকে মুসলিম শূন্য করার মোদি সরকারের নীল নকশা বাস্তবায়নে তিনিই হচ্ছেন মূল দিশারী। ভারতের উচ্চপদস্থ এই সেনা কর্মকর্তাটি বর্তমানে সামরিক বাহিনীর দ্বারা আবদ্ধ কাশ্মীর উপত্যকায় অবস্থান করছেন। আর পিকনিক মুডের বিভিন্ন ছবি প্রচারের মাধ্যমে বিশ্ববাসীকে বোঝানোর চেষ্টা করছেন, উপত্যকায় কোনো ঝমেলা নেই, সর্বত্র শান্তি আর শান্তি। কাশ্মীরের জনগণ ‘সুবোধ বালকের মতো’মোদির সিদ্ধান্ত মেনে নিয়েছে।



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft