জাতীয়
বর্তমান ইসির অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয় : বি চৌধুরী
কাগজ ডেস্ক :
Published : Sunday, 16 April, 2017 at 3:26 PM
বর্তমান ইসির অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয় : বি চৌধুরীবর্তমান নির্বাচন কমিশনের (ইসি) অধীনে কোনো সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয় বলে মন্তব্য করেছেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি ও বিকল্প ধারার সভাপতি অধ্যাপক এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী।
রোববার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে ‘জাতীয় নির্বাচন : নির্বাচনকালীন সরকার গঠনে নাগরিক ভাবনা’ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন। আলোচনা সভার আয়োজন করে আদর্শ নাগরিক আন্দোলন।
প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রশ্ন রেখে বলেন, ‘কীভাবে এই নির্বাচনের অধীনে নির্বাচন সুষ্ঠু হবে? কমিশন তো প্রশাসনের ওপর ভর করে নির্বাচন পরিচালনা করতে চায়। আর প্রশাসন তাকিয়ে থাকে প্রধানমন্ত্রী দিকে। তিনি যেভাবে চান সেভাবেই নির্বাচন হয়।’
তিনি বলেন, ‘তত্ত্বাবধায়ক সরকার বিলুপ্ত করা হয়েছে। কিন্তু এখন প্রশ্ন হলো, এই সরকারের বিকল্প কে হবে? তা না হলে সুষ্ঠু নির্বাচন তো চিন্তা করা যায় না।’
জামায়াতে ইসলামী কেন এখনো নিষিদ্ধ হয়নি, সরকারকে জিজ্ঞাসা করে তিনি বলেন, ‘সরকার এখন ধর্ম নিয়েও রাজনীতি শুরু করেছে। তারা হেফাজতে ইসলামের সঙ্গে আঁতাত করেছে। জামায়াতে ইসলামীকে নিষিদ্ধ করবে বলে এখনো করছে না। আসলে তারা ভোটের রাজনীতি করছে। হেফাজতকে তাদের ছায়াতলে নিয়ে গেছে। এখন জামায়াতের সঙ্গেও যোগাযোগ চলছে।’
গণতন্ত্র এখনো মানুষের রক্তে আসেনি বলেও মন্তব্য করেন প্রাক্তন এ রাষ্ট্রপতি।
আলোচনা সভায় গণস্বাস্থ্যের প্রতিষ্ঠাতা ড. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, ‘সবাই বলেন, জাতীয় নির্বাচন যদি সুষ্ঠু না হয় তাহলে সরকার যেনতেনভাবে ক্ষমতায় চলে যাবে। আবার সুষ্ঠু নির্বাচন হলে সরকার ক্ষমতায় যেতে পারবে না। কিন্তু আমি জানতে চাই, যারা এখন বিরোধী দলে আছেন তারা ক্ষমতায় গেলে সাধারণ মানুষের জন্য কী করবেন?’
‘এখন যদি নির্বাচন সুষ্ঠু না হয় তাহলে আমি বলব এর দায়ভার কোনোভাবে সরকারের নয়, এ দায়ভার বিরোধী দলের। কারণ তারা সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য রাজপথে আন্দোলন করে সরকারকে বাধ্য করতে পারেনি, ন্যায়ের জন্য লড়াই করতে পারেনি,’ বলেন তিনি।
প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফরের প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, ‘তিনি ভারতে গিয়ে তিস্তার পানির কোনো এজেন্ডা সেখানে তুলেননি। তিনি বিজেপি ও কংগ্রেসের সঙ্গে বৈঠক করে নিজে কীভাবে ক্ষমতায় থাকবেন সেটা পরিষ্কার করেছেন। এখানে তিনি তার স্বার্থ নিয়ে চিন্তা করেছেন। ভারতও তাদের স্বার্থের কথা চিন্তা করেছে। এর মধ্যে বাংলাদেশের সাধারণ মানুষের কোনো লাভ হয়নি।’
তিনি বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধে নিহত ১ হাজার ৬৬১ ভারতীয় সেনার জন্য শেখ হাসিনা ১০০ কোটি টাকা অনুদান দিয়েছেন। কিন্তু সেই সময় আমাদের দেশের ১ কোটির মতো শরণার্থী সেখানে আশ্রয় নিয়েছিলেন। তার মধ্যে প্রায় ৩০ লাখ মারা গেছেন। তাদের তালিকা এখনো ভারত সরকার দেয়নি। সে বিষয়ে আমরা কোনো কথাও বলিনি।’
আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন আদর্শ নাগরিক আন্দোলনের সভাপতি মুহাম্মদ মাহমুদুল হাসান। এতে আরো বক্তব্য রাখেন প্রাক্তন সংসদ সদস্য গোলাম মাওলা রনি, বাংলাদেশ ইসলামিক পার্টির সহসভাপতি এজাজ হোসেন প্রমুখ।




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : gramerka@gmail.com, editor@gramerkagoj.com
Design and Developed by i2soft